Friday, March 1, 2024

ফ্রি সম্প্রচার সুবিধা চেয়েছিল অস্ট্রেলিয়ান টিভি

তারিখ:

নিয়মিত অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ ইনজুরির কারণে ওয়েস্ট ইন্ডিজ থেকে দেশে ফিরে গেছেন। আসা হয়নি বাংলাদেশ সফরে। অস্ট্রেলিয়ায় বসে দলের খেলা দেখতে টুইটারে সরাসরি সম্প্রচারের লিঙ্ক খুঁজে পোস্ট করেছেন ফিঞ্চ। গ্লেন ম্যাক্সওয়েলও লাইভ সম্প্রচারের উপায় খুঁজছেন টুইটারে।

বাংলাদেশে আসা অ্যাস্টন অ্যাগার ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, তার স্ত্রী খেলা দেখতে মুখিয়ে আছেন। কিন্তু দেখতে পাচ্ছেন না। ২৭ বছর পর অস্ট্রেলিয়ায় সরাসরি সম্প্রচার হচ্ছে না অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের কোনো সিরিজ। এর আগে ১৯৯৪ সালে এ অভিজ্ঞতা হয়েছিল অস্ট্রেলিয়ানদের। ঐ বছর পাকিস্তান সফরের ম্যাচ সম্প্রচার হয়নি অস্ট্রেলিয়ায়। একই অবস্থা চলমান সিরিজে। বাংলাদেশ সফরে অস্ট্রেলিয়ার ম্যাচগুলো সম্প্রচার হচ্ছে না দেশটিতে।

জানা গেছে, অস্ট্রেলিয়ান টিভিগুলো কোনো অর্থ খরচ না করেই খেলা দেখাতে চেয়েছিল। ফ্রি সম্প্রচারের সুবিধা চেয়েছিল। এমনকি স্যাটেলাইট ফিও তারা দিতে রাজি হয়নি। তাই সিরিজের ব্রডকাস্টাররা এ সুবিধা দেয়নি তাদের। যা খুবই যৌক্তিক। টি-স্পোর্টসের প্রধান নির্বাহী ইশতিয়াক সাদেক বলেছেন, ‘আসলে তারা কোনো কিছু কিনতে চায়নি। তারা বলছে, যদি তাদেরকে ফ্রি দেই এবং স্যাটেলাইট খরচ দেই তবে তারা সম্প্রচার করবে। আমার মনে হয় না এটা কোনো অফার।’ ব্যান-টেক নামক সংস্থা সিরিজের ব্রডকাস্ট স্বত্ব কিনেছিল বিসিবির কাছ থেকে। যাদের কাছ থেকে স্বত্ব কিনে নিয়ে টি-স্পোর্টস, গাজী টিভি, বিটিভি এ সিরিজের খেলা সম্প্রচার করছে।

জানা গেছে, অস্ট্রেলিয়া দলের বেশির ভাগ আন্তর্জাতিক সিরিজই ফক্স স্পোর্টস সম্প্রচার করে থাকে। এবার অলিম্পিক গেমসের কারণে বাংলাদেশের বিপক্ষে সিরিজ সম্প্রচারে আগ্রহী হয়নি তারা। সঙ্গে দেশটির বেশ কয়েক জন তারকা ক্রিকেটারও বাংলাদেশ সফরে আসেননি। সব মিলিয়ে আগ্রহ কমেছে।

জনপ্রিয় সংবাদ